না.গঞ্জের ননএমপিও ভুক্ত শিক্ষকরা দেড় কোটি টাকা পাবেন।

0
না.গঞ্জের ননএমপিও ভুক্ত শিক্ষকরা

প্রেসনিউজ২৪ডটকমঃ করোনা প্রাদুর্ভাবের কারনে নারায়ণগঞ্জ সহ সারাদেশ আজ বিপর্যস্ত। এই অদৃশ্য শক্তির কারনে অনেক মানুষ উপার্জন হারিয়ে কর্মহীন হয়ে আছে। তার মাঝে জাতি গড়ার কারিগররা হলেন অন্যতম। ১৭ মার্চ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষনা করা হয়।

এতে করে নারায়ণগঞ্জের ননএমপিও ভুক্ত ৩ হাজার ২ শ’ ৯৯জন শিক্ষক ও কর্মচারি কর্মহীন হয়ে পরে। তাই এখানকার সুবিধাবঞ্চিত নন-এমপিও ভুক্ত শিক্ষক-কর্মচারীদের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১ কোটি ৪৮ লক্ষ ৭০ হাজার টাকা প্রণোদনা ঘোষনা করেন। ২৫ জুন বৃহস্পতিবার শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

নারায়ণগঞ্জ জেলা শিক্ষা শাখার কর্মকর্তা মো. হানিফ জানান, নারায়ণগঞ্জের ২ হাজার ৬শ’ ৪৯ জন শিক্ষকদের ৫ হাজার এবং ৬৫০ জন কর্মচারীদের ২ হাজার ৫শ’ করে টাকা দেয়া হবে। প্রণোদনার অর্থ এলে তা তাদের ব্যক্তিগত অ্যাকাউন্ট নম্বরে পাঠিয়ে দেয়া হবে। আশা করি শিগগিরই এ টাকা জেলা প্রশাসকদের মাধ্যমে বিতরণ শুরু হবে। এ অর্থ পেলে করোনা পরিস্থিতিতে কিছুটা হলেও তারা স্বস্তি পাবেন।

সিদ্ধিরগঞ্জ মিজমিজি পশ্চিম পাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সাইদুর রহমান বলেন, আমরা অবশ্যই কৃতজ্ঞতা জানাই আমাদের শিক্ষক বান্ধব প্রধানমন্ত্রীকে। এবং নন-এমপিও ভুক্ত শিক্ষক-কর্মচারীদের মাঝে যেন এই প্রণোদনার অর্থ  সঠিক ভাবে বিতরণ করা হয়। সেই সাথে দাবিও জানাই করোনা কালিন সময়ে যেন প্রতি মাসে তাদেরকে প্রণোদনার অর্থ প্রদান করা হয়।

মুক্তার কান্দি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক সেলিম মাহমুদ বলেন, করোনার কারনে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ হওয়ার আমরা কর্মহীন হয়ে পরি। কেননা এই পরিস্থিতিতে আমনা প্রাইভেটও পড়াতে পারছি না। উপার্জন না থাকলেও ব্যয় ঠিকই হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী এই প্রণোদনার জন্য কৃতজ্ঞতা জানাই।

জানতে চাইলে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মমিনুর রশিদ আমিন বলেন, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের প্রস্তাবের ভিত্তিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নন-এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের জন্য প্রণোদনার অর্থ অনুমোদন করেছেন। তিনি জানান সারাদেশের ননএমপিওভুক্ত শিক্ষক কর্মচারীদের জন্য ৪৬ কোটি ৬৩ লাখ টাকা প্রণোদনা হিসেবে বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। এ অর্থ ৮০ হাজার ৭শ’৪৭ জন শিক্ষক ও ২৫ হাজার ৩৮ জন কর্মচারীর মধ্যে বিতরণ করা হবে।

নারায়ণগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শিক্ষা ও আইসিটি রেবেকা সুলতানা বলেন, আমরা এ বরাদ্ধ আজ পেয়েছি। আমরা প্রতিটি উপজেলার ইউএনওর মাধ্যমে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকদের মাঝে চেক প্রদান করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here